24 February- 2021, 11:53 pm ।। ১২ই ফাল্গুন ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বেতাগীতে স্বেচ্ছাশ্রমে বিভিন্ন এলাকায় লকডাউন; এলাকায় মিশ্র প্রতিক্রিয়া

হৃদয় হোসেন মুন্না, বেতাগী (বরগুনা) প্রতিনিধিঃ

করোনাভাইসের সংক্রমণ থেকে সাধারণ মানুষকে সচেতন করতে স্থানীয় প্রশাসন নানা নির্দেশনা দিলেও তা খুব একটা আমলে নেয়নি সাধারণ মানুষ। তবে গত দুই দিনে করেনাভাইসের ভয়াবহতা বুঝতে পেরে সচেতন হচ্ছে তারা। করোনাভাইরাসের ঝুঁকি এড়াতে বেতাগী উপজেলার বিভিন্ন পাড়া-মহল্লা ও গ্রামের রাস্তার মোড়ে মোড়ে অঘোষিত লকডাউন শুরু হয়েছে। স্বেচ্ছাশ্রমে লকডাউন করা হয়েছে বিভিন্ন এলাকায় ।

লকডাউন করা এ সকল এলাকার রাস্তাগুলো বাঁশ ও গাছের গুঁড়ি দিয়ে বেড়িকেট সৃষ্টি করা হয়েছে। অনেক সড়কে আবার গাছ ফেলে রাস্তা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। তবে এই লকডাউন নিয়ে এলাকায় মিশ্র প্রতিক্রিয়া দেখা দিয়েছে।

এসব এলাকার অনেকে মনে করছে, করোনাভাইরাস প্রতিরোধে এভাবে লকডাউন ঠিক আছে। অনেকে আবার কেউ কেউ বলছে, এভাবে রাস্তায় বেড়িকেট সৃষ্টি করলে জরুরী সেবা প্রদানকারী সংস্থার গাড়িগুলো চলাচলে বাঁধার সৃষ্টি হবে। রাস্তায় গাছ ফেলে বেড়িকেট সৃষ্টি করা নিয়ে মারামারির ঘটনাও ঘটছে।

উপজেলার পৌরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ড, হোসনাবাদ, মোকামিয়াসহ বিভিন্ন এলাকা ঘুরে এ ধরনের লকডাউন দেখা গেছে। স্বেচ্ছাশ্রমের মাধ্যমে এসব এলাকার সড়কগুলোতে বাঁশ ও গাছ দিয়ে বেড়িকেট সৃষ্টি করা হয়েছে। যার ফলে এ সকল এলাকার সড়ক দিয়ে সকল প্রকার যান চলাচল বন্ধ রয়েছে।

নাম প্রকাশ না করা শর্তে এক যুবক বলেন, আমাদের এখান দিয়ে প্রচুর ভাড়ায় চলিত মোটরসাইকেল যাতায়াত করে। যারা যাতায়াত করে তাদের মধ্যে বেতাগী উপজেলার বাহিরে থেকেও লোকজন আসে। তাই এদের যাতায়েত বন্ধের জন্য সড়কে গাছ ফেলে বেড়িকেট সৃষ্টি করা হয়েছে।

নুর আলম নামে এক ভুক্তভুগি বলেন, করোনাভাইরাস প্রতিরোধে আমাদের সকলের সরকারি নির্দেশনা মেনে চলা উচিৎ। কিন্তু যারা উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় এভাবে স্বেচ্ছাশ্রমে লকডাউন করেছেন তারা অনেক ক্ষেত্রে ঠিক করেননি। যে ভাবে সড়কগুলোতে বাঁশ ও গাছ দিয়ে বেড়িকেট সৃষ্টি করা হয়েছে তাতে জরুরী সেবা প্রদানকারী সংস্থাগুলোর যানবাহন চলাচলে বাঁধার সৃষ্টি হতে পারে।

বেতাগী থানার অফিসার ইনচার্জ কাজী সাখাওয়াত হোসেন তপু জানান, আমাদের পক্ষ থেকে এসব এলাকায় সড়কে গাছ ফেলে লকডাউন করার অনুমতি দেয়া হইনি। তারা এটা নিজেদের উদ্যোগে করেছেন। করোনা প্রতিরধে একদিকে এটা একটা ভালো উদ্যোগ। তবে জরুরি সেবা সরবরাহে যেন বাঁধার সৃষ্টি না হয় সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. রাজীব আহসানের কাছে জানতে চাওয়া হলে তিনি বলেন, রাস্তায় বাঁশ বা গাছ দিয়ে বেড়িকেট সৃষ্টি করার ব্যাপারে প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন নির্দেশনা দেওয়া হয় নি। বিদেশ বা দেশের অন্য কোন এলাকার লোক যেন এলাকায় ঢুকতে না পারে তাই তারা স্বপ্রণোদিত হয়ে কাজটি করেছেন। তবে কেউ অতিরঞ্জিত কিছু করলে তাদের বিরুদ্ধ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Sharing. . . .




More News Of This Category


সংবাদ শিরোনামঃ
  Icone বেতাগীতে সন্ত্রাস-মাদকবিরোধী বিট পুলিশিং সমাবেশ  Icone বেতাগী খাদ্যের নিরাপদতা শীর্ষক সেমিনার  Icone বেতাগীতে মুজিববর্ষে ১২ জন গৃহহীন পেলেন শেখ হাসিনার উপহার ঘর  Icone বেতাগীতে বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস পালিত  Icone বেতাগী নাজেম আলী স্মৃতি ফাউন্ডেশনে পৌরসভার নয়া মেয়র ও কাউন্সিলরদের সংবধর্না  Icone বাংলাদেশ কমার্শিয়াল প্রকিউরমেন্ট ও সাপ্লাই-চেইন প্রফেশনালসে বার্ষিক ফ্যামিলি পিকনিক  Icone বেতাগীতে কৃষক মাঠ দিবস উদযাপন ও উন্নত জাতের বীজ বিতরণ  Icone বেতাগীতে কিশোরীদের স্যানিটারি প্যাড বিতরণ ও উদ্বুদ্ধকরণ সভা  Icone বেতাগীতে সড়ক ও বসতবাড়ি আঙিনায় বৃক্ষ সংরক্ষণ ক্যাম্পেইন  Icone বেতাগী পৌর নির্বাচন: সংঘর্ষের জেরে একজনকে মাথা ফাটিয়ে আহত